upper primary news

একদিকে ইন্টারভিউয়ের বিজ্ঞপ্তি জারি এবং অপর দিকে আবার কোর্টের নির্দেশে ভেরিফিকেশন !

এসএসসির উচ্চ প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ নিয়ে কিছু ধোঁয়াশাও রয়েই গেল !!

 

উচ্চ প্রাথমিকে ইন্টারভিউ শুরু হচ্ছে ২ রা জুলাই থেকে এবং চলবে ১৫ ই জুলাই পর্যন্ত,শুধুমাত্র ৭ এবং ১৪ জুলাই রবিবার হওয়ায় কাউন্সেলিং হবে না। সেই বিজ্ঞপ্তি দেখতে পাচ্ছেন আপনারা ।

শুক্রবার থেকেই ওয়েবসাইট থেকে ইন্টিমেশন লেটার ডাউনলোড করে নিতে পারছেন প্রার্থীরা। নিজেদের রেজিস্ট্রেশান/রোল নাং এবং জন্ম তারিখ দিয়ে । মোট ১৩,০৮০টি শূন্য পদে নিয়োগ হবে। এর জন্য ডাকা হচ্ছে প্রায় ২৪০০০ জনকে বলে জানা যাচ্ছে। ঐ ১৩,০৮০টি  পদের বাইরেও পার্শ্বশিক্ষকদের জন্য ১০ শতাংশ আসন সংরক্ষণ করা রয়েছে।

তাদের মামাল ৩রা জুলায় উঠছে বলে জানা যাচ্ছে ।

প্রশ্নও উঠছে যে ঐ  ১০ শতাংশ আসন সংরক্ষণ করা  হচ্ছে কেন এবং কখন তাঁদের নিয়োগ হবে ? আপনারা জানবেন যে পার্শ্বশিক্ষকদের যে মামলা এখনও কোর্টে বিচারাধীন ,সেই মামলা নিস্পত্তি করলে তাঁদের নিয়োগ করা হবে বলে জানা যাচ্ছে। মূলত এই মামলাটি হয় এসএসকে -এমএসকে শিক্ষা সহায়ক এবং সম্প্রসারক সহ আরও কয়েক ধরনের শিক্ষকও পার্শ্বশিক্ষকদের মতো সংরক্ষণ চেয়ে মামলা করেছেন।

 কোলকাতা হাইকোর্টের বিচারপতি মৌসুমি ভট্টাচার্য নির্দেশ দিয়েছিলেন, ১৭ জুনের পর থেকে ৩১ জুলাইয়ের পরে চার সপ্তাহের মধ্যে তাঁদের ডক্যুমেন্ট ভেরিফিকেশনের কাজ সেরে ফেলতে হবে কমিশনকে।

এখন সবথেকে বড় প্রশ্নও হচ্ছে একদিকে ইন্টারভিউ এবং অপর দিকে ডক্যুমেন্ট ভেরিফিকেশনের কাজ কিভাবে চলবে এবং তাতেই আতঙ্কিত হয়ে পড়েছেন এই প্রার্থীরা।

মামলাকারীদের ডক্যুমেন্ট ভেরিফিকেশনের জন্য ইতিমধ্যে নোটিফিকেশান জারি করে ফেলেছে এসএসসির। তাঁদের ভেরিফিকেশন শুরু হচ্ছে ০৬.০৭.২০১৯ সকাল ১০.৩০ থেকে ।

এখন হাজার হাজার প্রশ্নও জাগছে চাকরি প্রার্থীদের মধ্যে যদি ইন্টারভিউয়ে ডাক পাওয়া প্রার্থীদের মধ্যে থেকেই যদি শূন্যপদ পূরণ হয়ে যায়, তাহলে তো মামলাকারীদের ডাকার আর প্রয়োজনীয়তা থাকবে না ! তাছাড়া, বেশ কিছু প্রার্থীর উদাহরণ দেখিয়ে মামলা করা হয়েছিল। তাঁরা কম নম্বর পেয়েও ভেরিফিকেশনে ডাক পেয়েছেন ! সেই উদাহরণের ভিত্তিতেই আদালত এই রায় দিয়েছিল। ইন্টারভিউ বা পার্সোনালিটি টেস্টে ডাক পাওয়ার পর তো তাঁরা নিয়োগের সুযোগও পেয়ে যেতে পারেন ! সেক্ষেত্রেও মামলাকারীদের বঞ্চিত হওয়ার একটা সম্ভাবনা থেকে যাচ্ছে !

এখন সমস্ত সম্ভাবনা কে পিছনে রেখে যাতে ভালো ভাবে  ইন্টারভিউ এবং মামলাকারীদের ডক্যুমেন্ট ভেরিফিকেশনে যাতে দ্রুত শেষ হয় সেটাই প্রাথনা করি  এবং যাতে তাঁরা দ্রুত শিক্ষক হিসাবে স্কুলে যোগ দেয় তারও আশা রাখছি ।কারন তাঁরা এর জন্য দীর্ঘ দিন অপেক্ষা করে রয়েছে

 ***ধন্যবাদ ****

SHARE THIS NEWS TO YOUR FRIEND

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *