Wbssc job rejection case 2023:চাকরি বাতিলের নির্দেশের উপর স্থগিতাদেশ! বিরাট রায় শীর্ষ আদালতের!

0
59

এই মুহূর্তে একটি বড় খবর সামনে আসছে! স্কুলে অশিক্ষক কর্মী (Wbssc job rejection case 2023) থেকে নবম-দশমের শিক্ষক—নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় কারও চাকরি আপাতত যাচ্ছে না! বেআইনিভাবে নিয়োগের অভিযোগে কলকাতা হাইকোর্ট প্রায় ১,৯১১ জনের চাকরি বাতিলের নির্দেশ দিয়েছিল। সেই রায় বহাল রেখেছিল কলকাতা হাইকোর্টের ডিভিশন বেঞ্চ। কিন্তু কলকাতা হাইকোর্টের সেই রায়ের উপর বুধবার স্থগিতাদেশ দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট।

আপাতত যে সমস্ত চাকরি বাতিলের নির্দেশ জারি হয়েছিল এসএসসি ( স্কুল সার্ভিস কমিশন) -এর তরফ থেকে ,সেই সমস্ত শিক্ষক নিয়োগে দুর্নীতি মামলাতেও হাইকোর্টের রায়(Wbssc job rejection case 2023)এই মুহূর্তে কার্যকর হচ্ছে না। আপাতত সেই নির্দেশ নিষ্ক্রিয় রাখল সুপ্রিম কোর্ট। শীর্ষ আদালতের বিচারপতি অনিরুদ্ধ বসু এবং বিচারপতি সুধাংশু ধুলিয়ার বেঞ্চ এই রায় দিয়েছেন!

এই মামলার সূত্রপাত হয় যখন কলকাতা হাইকোর্টের নির্দেশের পর চাকরি হারানো চাকরিপ্রার্থীরা সেই রায়কে চ্যালেঞ্জ করে সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হয়! সুপ্রিম কোর্ট আগেই নির্দেশ দিয়েছিল (গত ৩রা মার্চ )যতদিন এই সমস্ত মামলার নিষ্পত্তি না হচ্ছে ততদিন ঐ (Wbssc job rejection case 2023) শূন্যপদে নিয়োগের জন্য কোনও পদক্ষেপ করতে পারবে না স্কুল সার্ভিস কমিশন!

Wbssc job rejection case 2023
Wbssc job rejection case 2023

Wbssc job rejection case 2023

এদিন বিচারপতি অনিরুদ্ধ বসু এবং বিচারপতি সুধাংশু ধুলিয়ার বেঞ্চে এই মামলাটি ফের শুনানির জন্য ওঠে। চাকরি হারানো অশিক্ষক কর্মীদের আইনজীবী পার্থসারথি দেববর্মন নিজের বক্তব্য শীর্ষ আদালতে পেশ করেন। তিনি বলেন, হাইকোর্ট আমাদের কথা ঠিক মতো না শুনে চাকরি বাতিল করেছে। তাই স্রেফ কাউন্সেলিং নয়, চাকরি বাতিলের রায়ের উপরও স্থগিতাদেশ দেওয়া হোক।

আদালত সেই আবেদন গ্রহণ করে এবং চাকরি বাতিলের নির্দেশের উপর স্টে জারি করে। আগামী ৯ই মে এই মামলার শুনানি হবে। সেই দিন এই মামলার পরবর্তী আপডেট সামনে আসবে।

কলকাতা হাইকোর্টের নির্দেশ এখনও অব্দি প্রায় ৩০০০ চাকরি বাতিলের নির্দেশ জারি হয়েছে। গ্রুপ সি তে ৮৪২ জনের। গ্রুপ ডি তে ১৯১১ জনের এবং নবম-দশম শ্রেণির ৯৫২ জন সহকারী শিক্ষক চাকরি বাতিলের নির্দেশ জারি করা হয়েছে!

কলকাতা হাইকোর্টের এই সংক্রান্ত যাবতীয় নির্দেশকেও এদিন আপাতত নিষ্ক্রিয় রাখার নির্দেশ দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট। বেঞ্চ জানিয়েছে, সর্বোচ্চ আদালতে মামলার নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত হাইকোর্টের কোনও রায় আপাতত কার্যকর হবে না।

Wbssc job rejection case 2023
(Wbssc job rejection case 2023)

আগামী বুধবার অর্থাৎ ৯ই মে মামলাটির শুনানি হতে পারে। উল্লেখ্য,ওএমআর শিট বিকৃত করার অভিযোগ উঠেছিল। হাইকোর্টের বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায় এবং বিচারপতি বিশ্বজিৎ বসু স্কুল সার্ভিস কমিশনের একাধিক চাকরি বাতিল করেছিল!

আরও নিউজ পড়তে এখানে ক্লিক করুন!

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here