Primary teachers recruitment news, supreme court aksed why recruitment process so dely

0
52

প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ এর একগুচ্ছ মামলা রয়েছে কলকাতা হাইকোর্টে এবং সেই ভাবে অনেক মামলাও রয়েছে সুপ্রিম কোর্টে। গতকাল ঐ রকম প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ কিছু গুরুত্বপূর্ণ মামলা উঠে সুপ্রিম কোর্টে। সেখানে মহামান্য উচ্চ আদালত রাজ্যের কাছে লিখিত আকারে জানতে চায় ,যারা যোজ্য তাঁদেরকে কেন এখন প্রাথমিক শিক্ষক রূপে প্রাথমিক বিদ্যালয়ে নিয়োগ করা হচ্ছে না ?

আরও পড়ুন: 22000 গ্রুপ সি এবং গ্রুপ বি নিয়োগ 

আগেই হয়েছে স্ক্রুটিনি । তাতে যোগ্য বলে বিবেচিত হয়েছে প্রায় 6000 জন। এখন সুপ্রিম কোর্টের প্রশ্ন ,তাঁদের নিয়োগ প্রক্রিয়া শুরু করতে বিলম্ব কেন? স্ক্রুটিনি তালিকায় থাকা প্রায় 6000 জনের ভবিষ্যৎ কী? প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষকতার চাকরি প্রসঙ্গে সংগঠক শিক্ষকদের একগুচ্ছ মামলার শুনানিতে গতকাল এই মর্মে পশ্চিমঙ্গ সরকারের লিখিত জবাব চাইল সুপ্রিম কোর্ট।

আরও পড়ুন : [2019] প্রচুর শূন্য পদে কর্মী নিয়োগের জন্য প্রস্তুতি শুরু নবান্নে । কোন পদে কত কর্মী নিয়োগের সম্ভবনা দেখুন !

আগামী তিন সপ্তাহের মধ্যে রাজ্যকে ওই জবাব দিতে হবে বলেই নির্দেশ দিয়েছেন সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতি এম সান্তনাগৌধর এবং বিচারপতি ইন্দিরা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ডিভিশন বেঞ্চ।

আপনারা জানেন যে প্রথমে তিন সদস্যের একটি ‘ভেরিফিকেশন কমিটি’ গঠন করে সর্বোচ্চ আদালত,কিন্তু তাদের কাজে অসন্তুষ্ট হওয়ায় তাই আবার নতুন করে ‘পশ্চিমবঙ্গ লিগাল এইড অথরিটি’কে স্ক্রুটিনি করার নির্দেশও দেওয়া হয়েছিল। তারা স্ক্রুটিনিও করছে। প্রাইমারি বোর্ডকে রিপোর্টও জমা দিয়েছে বলে জানা গিয়েছে। ঐ রিপোর্টে জেলা ত থেকে প্রায় 6000 জনকে প্রাথমিকভাবে যোগ্য বলেই মনে করা হয়েছে বলে জানা গিয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here